টাওয়ার হ্যামলেটসের স্পিকারকে সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সংবর্ধনা

সারাদেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক:: লন্ডন বারা অব টাওয়ার হ্যামলেটসের স্পিকার মোহাম্মদ আহবাব হোসেন বলেছেন, ‘সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সাথে লন্ডন বারা অব টাওয়ার হ্যামলেটসের একটা গভীর সম্পর্ক আছে। এই সম্পর্ক হচ্ছে আদর্শ ও নৈতিকতার। এটি দিন দিন আরও বৃদ্ধি পাচ্ছে। এজন্য লিখিত কোনো দলিলের প্রয়োজন নেই, এ সম্পর্ক আত্মার। এর মাধ্যমে যুক্তরাজ্য প্রবাসী বাঙালি ও সিলেট তথা বাংলাদেশের সঙ্গে সম্পর্ক আরও সুদৃঢ় হবে।’

প্রবাস জীবনেও রাজনীতির সাথে সম্পৃক্ত ছিলেন জানিয়ে স্পিকার বলেন, ‘প্রবাসে থাকলেও দেশের মানুষের কথা এক মুহূর্তের জন্যও ভুলিনি। দেশের প্রতি যে ভালোবাসা ছিল- তা এখনও অটুট আছে। গত বছর আমরা লন্ডনে বাংলাদেশের স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী পালন করেছি, যা ইতিহাস সৃষ্টি করেছে।’

সিলেট জেলা প্রেসক্লাব কর্তৃক তাকে দেওয়া সংবর্ধনার জবাবে লন্ডন বারা অব টাওয়ার হ্যামলেটসের স্পিকার এসব কথা বলেন।

তিনি আরও বলেন, ‘প্রবাসীরাও বাংলাদেশের রাজনীতিতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছেন এবং অর্থনীতিকে শক্তিশালী করছেন। তাদের অবদানও কম নয়। বিশেষ করে সিলেটীদের অবদান অবিস্মরণীয়।’

বৃহস্পতিবার বিকাল ৩টায় জেলা প্রেসক্লাব মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি আল আজাদ।

ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক ছামির মাহমুদের সঞ্চালনায় এতে অতিথি ছিলেন- গ্রেটার লন্ডন অ্যাসেম্বলির মেম্বার উমেশ দেশাই, সিটি অব লন্ডনের কাউন্সিলম্যান ও সংগ্রাম চলচিত্রের পরিচালক মো. মনসুর আলী, ইন্টারন্যাশনাল ক্যারেম ফাউন্ডেশনের ভাইস প্রেসিডেন্ট, যুক্তরাজ্য ক্যারেম চ্যাম্পিয়ন সোনাহর আলী রিংকু, লন্ডনের কাউন্সিলর ও হাউজিং অফিসার ফখরুল হক, যুক্তরাজ্যের কনজার্ভেটিভ পার্টির স্থায়ী সদস্য মোহাম্মদ আবদুল কাদির, লন্ডন চা-বিনিময়কারী প্রতিষ্ঠানের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ অলিউর রহমান, যুক্তরাজ্যের বিশিষ্ট ব্যবসায়ী আবদুল করিম নাজিম, মিসবাহ বিএস চৌধুরী, আশিক রহমান, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস সিলেট মহানগর শাখার সভাপতি মাওলানা গাজী রহমত উল্লাহ ও বিশিষ্ট ব্যবসায়ী একেএম আশরাফ উদ্দিন কালাম প্রমুখ।

অনুষ্ঠানের শুরুতে স্বাগত বক্তব্য দেন- সিলেট জেলা প্রেসক্লাবের কার্যনির্বাহী পরিষদের সদস্য, সিলেট সিটি করপোরেশনের কাউন্সিলর রেজওয়ান আহমদ।

শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন- ক্লাবের প্রতিষ্ঠাকালীন সাধারণ সম্পাদক অধ্যক্ষ লিয়াকত শাহ ফরিদী ও ক্লাবের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহ দিদার আলম চৌধুরী নবেল।

সংবর্ধিত অতিথিকে জেলা প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে ক্রেস্ট দিয়ে সম্মাননা জানান ক্লাবের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকসহ সিনিয়র সদস্যবৃন্দ। এছাড়া সংবর্ধিত অতিথিসহ অতিথিবৃন্দকে ফুল দিয়ে শুভেচ্ছা জানান ক্লাবের কোষাধ্যক্ষ মিসবাহ উদ্দীন আহমদ এবং তথ্য ও প্রযুক্তি সম্পাদক সুলতান সুমন।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন- জেলা প্রেসক্লাবের কার্যনির্বাহী সদস্য মিঠু দাস জয়, ক্লাবের জ্যেষ্ঠ সদস্য মোহাম্মদ মহসীন, মুকিত রহমানী, মামুন হাসান, সদস্য রায়হান উদ্দিন, আশরাফ চৌধুরী রাজু, ইয়াহ্ইয়া মারুফ, মো. ছয়ফুল আলম অপু, আতিকুর রহমান নগরী, মোখলেছুর রহমান, ফয়জুল আহমদ, রাজীব রাসেল, সহযোগী সদস্য মো. শহীদুল ইসলাম সবুজ প্রমুখ।

সংবাদটি শেয়ার করুন