আন্তর্জাতিক হিফজ প্রতিযোগিতায় প্রথম বাংলাদেশি শিশু

ধর্ম

খবরটুডে ডেস্ক:: ইরান আন্তর্জাতিক হিফজুল কোরআন প্রতিযোগিতায় বাংলাদেশের প্রতিযোগী হাফেজ সালেহ আহমাদ তাকরীম (১৩) প্রথম স্থান অর্জন করেছে।

তেহরানের আন্দিশাহ (আল-ফিকির) মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত ৩৮তম আন্তর্জাতিক হিফজুল কোরআন প্রতিযোগিতায় এই বিজয় অর্জন করে সালেহ আহমাদ। রাজধানীর মিরপুরে অবস্থিত মারকাযু ফয়জিল কুরআন আল ইসলামি ঢাকার শিক্ষার্থী সে।

১ থেকে ৫ মার্চ প্রতিযোগিতার চূড়ান্ত পর্ব শুরু হয়। ৫ মার্চ জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে তা শেষ হয়। সমাপনী অনুষ্ঠানে ইরানের সংস্কৃতিমন্ত্রী মুহাম্মাদ মাহদি ইসমাইলি, শিক্ষামন্ত্রী ইউসুফ নুরি ও ইসলামিক দাওয়া সেন্টারের প্রধান সৈয়দ মাহদি খামুশিসহ বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রদূত উপস্থিত ছিলেন।

গত আগস্টের শেষ দিকে ইসলামিক ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের তত্ত্বাবধানে জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে অনুষ্ঠিত নির্বাচনী পরীক্ষায় হাফেজ তাকরীম বাংলাদেশের প্রতিনিধি নির্বাচিত হয়। পরে প্রথম ও দ্বিতীয় ধাপে উত্তীর্ণ হয়ে চূড়ান্ত পর্বের জন্য নির্বাচিত হয় সে। চূড়ান্ত পর্বে পাঁচ দেশের সেরা প্রতিযোগীর মধ্যে বাংলাদেশের প্রতিযোগী সালেহ আহমাদ সর্বোচ্চ নম্বর পেয়ে প্রথম স্থান অর্জন করে।

২০২০ সালের পবিত্র রমজান মাসে বাংলাভিশন টেলিভিশন আয়োজিত হিফজুল কোরআন প্রতিযোগিতায় বিজয়ী হয় সালেহ। তার গ্রামের বাড়ি টাঙ্গাইলে। সালেহর বাবা হাফেজ আবদুর রহমান একটি মাদ্রাসার শিক্ষক। মা গৃহিণী।

সালেহর এমন কৃতিত্বের জন্য মারকাযু ফয়জিল কুরআনের প্রিন্সিপাল ও গুলশান সোসাইটি মসজিদের খতিব মুফতি মুরতাজা হাসান ফয়েজী দেশবাসীর কাছে দোয়া চেয়েছেন। তিনি বলেন, এই প্রতিষ্ঠানের ছাত্ররা গত দুই বছর কুয়েত, মিসর ও আলজেরিয়া আন্তর্জাতিক হিফজুল কোরআন প্রতিযোগিতার বাছাইয়ে বাংলাদেশের চূড়ান্ত প্রতিনিধি মনোনীত হলেও করোনা প্রাদুর্ভাবের কারণে অংশগ্রহণ করতে পারেনি।

সংবাদটি শেয়ার করুন